ব্রেকিং:
প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকরাও বেতন পাবেন অনলাইনে ওআইসির পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের বৈঠক শুক্রবার, শীর্ষ এজেন্ডা রোহিঙ্গা ভারতে কৃষকদের বিক্ষোভে পুলিশের বাধা, সংঘর্ষে রণক্ষেত্র

শুক্রবার   ২৭ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রাহায়ণ ১৩ ১৪২৭,   ১০ রবিউস সানি ১৪৪২

সর্বশেষ:
রাজস্ব বোর্ডের পুরস্কার পাবে ভ্যাটদাতা ক্রেতা ভালো শিক্ষক ছাড়া শিক্ষায় পরিবর্তনে সুফল মিলবে না বস্তিতে আগুনের ঘটনা রহস্যজনক : মির্জা ফখরুল পার্বত্য চট্টগ্রামে বছরে ৪শ’ কোটি টাকার চাঁদাবাজি ভুয়া অনলাইনের বিরুদ্ধে শিগগিরই ব্যবস্থা: তথ্যমন্ত্রী বেসামরিক আফগানদের হত্যার দায়ে ১০ অস্ট্রেলীয় সেনা বরখাস্ত ম্যারাডোনার মৃত্যুতে মিরপুরে নীরবতা অবরুদ্ধ গাজায় দারিদ্রসীমার নিচে লক্ষাধিক ফিলিস্তিনি: জাতিসংঘ
১৭

আপত্তি সত্ত্বেও পশ্চিমতীরে পম্পেওর সফর, ফিলিস্তিনে উত্তেজনা

প্রকাশিত: ২১ নভেম্বর ২০২০  

ফিলিস্তিনিদের দীর্ঘদিনের আপত্তি সত্ত্বেও জেরুজালেমকে শুধু ইসরাইলের রাজধানী বলে ‘স্বীকৃতি’ দিয়েছিলেন আমেরিকান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

এর তিন বছরের মাথায় বৃহস্পতিবার অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলেরই অধিকৃত পশ্চিমতীরে ইহুদি বসতিতে গিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে ফিলিস্তিনিদের ক্ষোভে নতুন করে ঘি ঢাললেন তার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। খবর আনাদোলু।

এই প্রথম কোনও মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী বিতর্কিত পশ্চিমতীরে পা রাখলেন। সেখানে গিয়ে মাইক পম্পেও যা বললেন, তাতে আরও উত্তেজনা ছড়িয়েছে ফিলিস্তিনে।

সেখানে গিয়ে পম্পেও বললেন, পশ্চিমতীরে তৈরি হওয়া যে কোনও পণ্য ‘মেড ইন ইজরাইল’ হিসেবেই বিদেশে রফতানি হওয়া উচিত। কারণ এই ভূখণ্ড ইসরায়েলেরই অবিচ্ছেদ্য অংশ।

পম্পেও আরও বলেন, পশ্চিমতীরে ইসরাইলের বসতি সম্প্রসারণকেও আর আন্তর্জাতিক আইনলঙ্ঘন বলে মনে করবে না ওয়াশিংটন।

গত বছর নভেম্বরে ঠিক এমনটাই বলেছিলেন ট্রাম্প। তার পাঠানো পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মুখে ফের সেই সুর শুনে তীব্র প্রতিবাদ শুরু হয়েছে ফিলিস্তিন ও আরব বিশ্বে।


অনলাইন নিউজ পোর্টাল
অনলাইন নিউজ পোর্টাল
এই বিভাগের আরো খবর