ব্রেকিং:
১০ আগস্ট পর্যন্ত বাড়লো চলমান বিধি-নিষিধ বাংলাদেশে ভারতীয় টিকা `কোভ্যাক্সিন` ট্রায়ালের অনুমোদন ছক্কা গ্যালারিতে পড়লেই দিতে হবে ‘নতুন’ বল! চীনে আবারও বাড়ছে করোনা, চলমান লকডাউন বাড়ছে কিনা সিদ্ধান্ত আজ

মঙ্গলবার   ০৩ আগস্ট ২০২১,   শ্রাবণ ১৯ ১৪২৮,   ২৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

সর্বশেষ:
১১ আগস্ট থেকে দোকানপাট ও অফিস খোলার সিদ্ধান্ত বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃত্যু সাড়ে ৪২ লাখ, আক্রান্ত প্রায় ২০ কোটি গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় শনাক্ত কমলেও বেড়েছে মৃত্যু সিডনিতে আরো এক দফা বাড়লো লকডাউন, রাস্তায় নেমেছে সেনা সদস্যরা আজ দেশের বিভিন্ন স্থানে মাঝারি ও ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস খাবারে বিষক্রিয়ায় মাদ্রাসাছাত্রের মৃত্যু, ১৭ শিশু হাসপাতালে রামেক হাসপাতালে করোনা কেড়ে নিল আরও ১৯ জনের প্রাণ আশুলিয়ায় ৫ টাকা ভাড়া বেশি চাওয়ায় অটোচালককে হত্যা!
৩০৭

একসঙ্গে ঘর পাচ্ছে ৭০ হাজার পরিবার

প্রকাশিত: ২৩ জানুয়ারি ২০২১  

একসাথে ৭০ হাজার ভূমিহীন হতদরিদ্র পরিবার এবার ঘর পাচ্ছে সরকারের তরফ থেকে।  বিশ্ব ইতিহাসে বিরল এই উদ্যোগটি আনুষ্ঠানিকতা শেষ করতে যাচ্ছে আগামিকাল ২৩ জানুয়ারি।  বছরের পর বছর ঘর না থাকার কষ্টের জীবন শেষ হতে যাচ্ছে ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের।  বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকী উপলক্ষে ঘোষিত মুজিব বর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে সেমি পাকা ঘর এবং জমি পাচ্ছেন এসব মানুষ।
চলমান কর্মসূচির প্রথম পর্যায়ে আগামিকাল শনিবার (২৩ জানুয়ারি) প্রায় ৭০ হাজার পরিবার পাবে এসব নবনির্মিত পাকা ঘর।  এটিই বিশ্বে গৃহহীন মানুষকে বিনামূল্যে ঘর করে দেওয়ার সবচেয়ে বড় কর্মসূচি।  এর মধ্য দিয়ে পৃথিবীতে নতুন ইতিহাস গড়তে যাচ্ছে বাংলাদেশ।
সংশ্লিষ্টরা জানান, গৃহহীন-ভূমিহীনদের ঘর করে দেওয়ার এত বড় কর্মসূচি পৃথিবীতে আর একটিও নেই।
প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন।  প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে মাঠ প্রশাসনের কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিরা উপকারভোগীদের ঘর বুঝিয়ে দেবেন।  মুজিব বর্ষের মধ্যে সবার জন্য ঘর নিশ্চিত করতে পর্যায়ক্রমে প্রায় ৯ লাখ পরিবারকে ঘর করে দেবে শেখ হাসিনার সরকার।

সারা বাংলাদেশে ঘরও নাই, জমিও নাই এমন পরিবারের সংখ্যা ২ লাখ ৯৩ হাজার ৩৬১। ভিটেমাটি আছে, ঘর জরাজীর্ণ কিংবা ঘর নাই এমন পরিবারের সংখ্যা ৫ লাখ ৯২ হাজার ২৬১। মুজিববর্ষ উপলক্ষে সারা বাংলাদেশে যে তালিকা করা হয়েছে সব মিলিয়ে সেই তালিকায় ৮ লাখ ৮৫ হাজার ৬২২টি পরিবার রয়েছে।

আশ্রয়ণ প্রকল্পের নথি থেকে জানা যায়, ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবার পুনর্বাসনের লক্ষ্যে ১৯৯৭ সালে তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার তত্ত্বাবধানে আশ্রয়ণ নামে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় একটি প্রকল্প গ্রহণ করে। এই প্রকল্পের আওতায় ১৯৯৭ সাল থেকে ২০২০ সালের ডিসেম্বর মাস অবধি ৩ লাখ ২০ হাজার ৫২টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে পুনর্বাসন করা হয়।

আশ্রয়ণ প্রকল্পের উদ্দেশ্য হলো- ভূমিহীন, গৃহহীন, ছিন্ন অসহায় দরিদ্র জনগোষ্ঠীর পুনর্বাসন, ঋণপ্রদান ও প্রশিক্ষণের মাধ্যমে জীবিকা নির্বাহে সক্ষম করে তোলা এবং আয় বাড়ে এমন কার্যক্রম সৃষ্টির মাধ্যমে দারিদ্র্য দূরীকরণ।


এই বিভাগের আরো খবর